এত প্রতিভা! কোথায় ছিল এতদিন?

ছোটবেলা থেকেই আমি টো টো কোম্পানির অবৈতনিক ম্যানেজার। বয়সের সাথে অনেকবার বিভিন্য প্রতিকূল ও অনুকূল পরিবেশের দরুন যথাক্রমে ডিমোশন ও প্রমোশন হয়েছে। কিন্তু চাকরি যায় নি 🙂
কারো কারো মনে প্রশ্ন জাগতে পারে, ম্যানেজার থেকে প্রমোশন হয়ে আপনার পোষ্ট কি হয়েছিল?  আরে ভাই, ব্রাঞ্চ চেঞ্জ হইছে শুধু। ব্যাংকের ম্যানেজার দের দেখেন না? ঐরকম ই।
ফেসবুক ব্রাঞ্চেও এই পদে বহাল তবিয়ৎ থাকার দরুন যখন তখন যার তার প্রোফাইলে ঢু’মারার সু (ক্ষেত্র বিশেষে কু) অভ্যাস রয়েছে। প্রোফাইল টু প্রোফাইল ঘুরে যা বুঝতে পারলাম তা হলো, নাস্তিক, আস্তিক নির্বিশেষে বাংলা কমিউনিটির প্রায় প্রত্যেকে এখন এক এক জন বিশিষ্ট ইসলামী চিন্তাবিদ। একদম ছাত্রশিবির টু ছাত্রলীগ। জামায়াত টু আওয়ামিলীগ। বাঁশেরকেল্লা টু ঘাসেরকেল্লা। মার্ক্সবাদী টু মাওবাদী। ধর্মনিরপেক্ষ টু মৌলবাদী।  আরাফাত খান টু রোকেয়া প্রাচী। ইমরান এইচ সরকার টু লাকি।  পাপিয়া টু থ্রি ফোর ফাইভ সিক্স সবাই! মাশাল্লাহ। এমন একটা অনলাইন ই তো আমরা চেয়েছিলাম। যেখানে সবাই সব খাজুইরা আলাপ বাদ দিয়া ইসলামী আলোচনা করবে।
হু, করচ্ছে। তো? তো সমস্যা কোথায়? সমস্যা তো আলোচনায় না। সমস্যা তখনই যখন সমুদ্রের পানি থেকে চিনি উৎপাদন করা হয়। ব্যাপারটা মুরগী দিয়ে হাল চাষ করানোর মত।
আশ্চর্য না? কি প্রতিভা! কোথায় ছিল এতদিন?

১৭০৫ টি সর্বমোট হিট ২ টি আজকের হিট

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *