Featured Video Play Icon

ঘুরে এলাম চন্দ্রনাথ পাহাড় । সুপ্তধারা ঝর্ণা । সহস্রধারা ঝর্ণা ও লেক

ইফতেখার আহমেদ ইফতির সাথে এটা আমার ২য় ট্যুর। ইকো ট্যুরিজম (অপু নজরুল) এর একটা ইভেন্ট এর মাধ্যমে পরিচয় হয় ইফতির সাথে। বন্ডিং টা বেশ ভাল যাচ্ছিল। কথায় কথায় আবার সীতাকুন্ড যাওয়ার কথা উঠলো। তার আরো কিছু ফ্রেন্ড যাচ্ছে, প্ল্যান পছন্দ হওয়ার আমিঅ জয়েন করলাম তাদের সাথে।

ভ্রমণ তারিখের ৪ দিন আগে থেকে আমার জ্বর। নাপা খেয়ে খেয়ে জ্বর দমীয়ে রাখলাম। রৌনা দেয়ার দিন আমার আর জ্বর আসেনি। ভাবলাম আসবে না। রাতে ১টার দিকে বাসে উঠলাম আরামবাগ শ্যামলী কাউন্টার থেকে। এর পরের বাকি অংশ ভিডিওতে আছে।

আমাদের টার্গেট ছিল চন্দ্রনাথ পাহাড়, সহস্রধারা ঝর্ণা, সহস্রধারা লেক, সুপ্তধারা ঝর্ণা, ছাগলকান্দি ঝর্ণা, রুপসী ঝর্ণা ও কমলদহ ঝর্ণা দেখা। তবে চন্দ্রনাথ পাহাড়, সহস্রধারা ঝর্ণা, সহস্রধারা লেক, সুপ্তধারা ঝর্ণা দেখার পর আমরা সবাই বেশ ক্লান্ত হয়ে গিয়েছিলাম যে, আরে কোথাও যাওয়া সম্ভব হচ্ছিল না।
ছাগলকান্দি ঝর্ণা, রুপসী ঝর্ণা ও কমলদহ ঝর্ণা গুলো প্রায় একই সাথে বা কাছাকাছি। তাই ৩টা একই সাথে মিস করতে হয়েছে। রুপসী ঝর্ণা ও কমলদহ ঝর্ণায় আমার আগে যাওয়া হয়েছে।

যেভাবে গিয়েছিঃ ঢাকা থেকে বাসে সীতাকুন্ড, সেখান থেকে চন্দ্রনাথ পাহাড়, চন্দ্রনাথ থেমে নেমে আবার সীতাকুন্ড হয়ে লেগুনাতে করে ছোট দারোগার হাট। সেখান থেকে সহস্রধারা ও সুপ্তধারা। এখান থেকে আবার ছোট দরকার হাট। এখান থেকেই বারই হাট গিয়ে ফিরতি বাসে উঠেছি আমরা।
আর ছাগলকান্দি ঝর্ণা, রুপসী ঝর্ণা ও কমলদহ ঝর্ণা গুলো দেখতে হলে আপনাকে নামতে হবে বড় দারোগার হাট। ছোট দারোগার হাট থেকে কেগুনায় করে যাওয়া যায়।

এই ট্রিপে এপ্রোক্সিম্যাট খরচ ধরা ছিল ১৫০০ থেকে ১৭০০।

৫৯ টি সর্বমোট হিট ৪ টি আজকের হিট

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *